advertisement

আজ ১৪ ডিসেম্বর মোরেলগঞ্জ হানাদার মুক্ত দিবস

 

মোঃ মেহেদী হাসান নিয়াজ, মোরেলগঞ্জ (বাগেরহাট) প্রতিনিধিঃ
১৪ই ডিসেম্বর মোরেলগঞ্জ হানাদার মুক্ত দিবস। ১৯৭১ সালে এই দিনে বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জ উপজেলা পাক হানাদার মুক্ত হয়। তৎকালীন ছাত্রলীগ সভাপতি ও মুজিব বাহিনীর প্রধান ডা. মোসলেম উদ্দিন জানান, তার নেতৃত্বে ১১জনের একটি দল মোরেলগঞ্জকে শত্রুমুক্ত ঘোষনা করে প্রথমে স্বাধীন পতাকা উত্তোলন করেন।
মোরেলগঞ্জ সদর বাজারের কবিরাজের বিল্ডিং ও জিতেন বাবুর ব্লিডিংয়ে রাজাকারদের ক্যাম্প ছিল। তৎকালিন এ অঞ্চলের মুজিব বাহিনীর প্রধান ডা. মোসলেম উদ্দিনের নেতৃত্বে ১৩ ডিসেম্বর শেষ রাতে মোরেলগঞ্জে আসেন এবং টাউন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে অবস্থান নেয়। রাজাকারদের ক্যাম্পগুলো একের পর এক আক্রমন করা হয়। এ সময় পাক বাহিনী পালিয়ে যায়। পরদিন ১৪ ডিসেম্বর সকাল ১১টায় মোরেলগঞ্জকে শত্রুমুক্ত ঘোষনা করে পতাকা উত্তোলন করেন মুজিব বাহিনীর সদস্যরা। ডা. মোসলেম উদ্দিন জানান, এ অভিযানে যারা অংশ নিয়েছিল তাদের কয়েকজন হলেন মুজিব বাহিনীর সেকেন্ড ইন-কমান্ড সুলতান খান, নীল রতন মিস্ত্রী, আব্দুল আজিজ, আব্দুর রশিদ বক্স, আব্দুল খালেক, সোহরাব হোসেন ও গাইডার মকবুল মাস্টার।
একইদিনে সুন্দরবন ও জিউধরা ইউনিয়নের ঢালী বাড়ি ক্যাম্প থেকে সাব-সেক্টর কমান্ডের অন্যতম সদস্য স.ম. কবির আহমেদ মধুর নেতৃত্বে শত শত মুক্তিযোদ্ধা ও মুক্তিকামী জনতা মোরেলগঞ্জ সদরের রায়ের বিল্ডিং, কবিরাজের বিল্ডিং, শম্ভু বাবুর বিল্ডিং, কুঠিবাড়ির বিল্ডিংয়ে স্বাধীনতার পতাকা উত্তোলন করেন৷ এভাবেই ১৪ ই ডিসেম্বর মোরেলগঞ্জ স্বাধীন হয়৷
spot_imgspot_imgspot_imgspot_img
এই বিভাগের আরও খবর
- Advertisment -spot_img

সর্বাধিক পঠিত