কত টাকা পাবে বিশ্বকাপের প্রাইজমানি,চ্যাম্পিয়নরা

 

স্বাধীন নিউজ ডেস্ক! 

ফিফা বিশ্বকাপের ২২তম আসরের ক্লাইম্যাক্স একেবারে শেষ পর্যায়ে। লুসাইল স্টেডিয়ামে আর একটি ম্যাচ নির্ধারণ হয়ে যাবে, কারা হবে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন।

আজ ১৮ ডিসেম্বর রবিবার বাংলাদেশ সময় রাত ৯টা থেকে শুরু হয়েছে বিশ্বকাপের ফাইনাল ফ্রান্স এবং আর্জেন্তিনার মধ্যে মহারণ।

ফুটবল সমর্থকেরা ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন ফ্রান্স এবং লিওনেল মেসির নেতৃত্বাধীন আজেন্টিনার মধ্যে একটি হাড্ডাহাড্ডি লড়াই চলছে।

বিশ্বকাপের ইতিহাসে তৃতীয় বারের মতো শিরোপা কারা জিতবে? তা নিয়ে জল্পনা তুঙ্গে! আর্জেন্তিনা ১৯৭৮ এবং ১৯৮৬ সালে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল। আর ফ্রান্স ১৯৯৮ এবং ২০১৮ সালে বিশ্ব জয়ের স্বাদ পায়।

শুধু কি ট্রফি,পরবর্তী চার বছরের জন্য বিশ্ব শ্রেষ্ঠত্বের সম্মান আর গৌরব। সঙ্গে আর্থিক পুরষ্কার তো আছেই। ইতিহাসের সবচেয়ে ব্যয়বহুল বিশ্বকাপ। কাতার বিশ্বকাপ আয়োজনে যে খরচ করা হয়েছে, তা অতীতের ২১ আসরের মোট খরচের সব রেকর্ডকে ছাড়িয়ে গেছে।

এজন্য বর্তমান প্রযুক্তির যুগে বল ও অফ সাইড টেকনোলজি, অতিরিক্ত খেলোয়াড়ের সংখ্যাবৃদ্ধিসহ অনেক নতুন নিয়ম এবং প্রযুক্তি যুক্ত হয়েছে কাতার বিশ্বকাপে। প্রাইজমানিতেও প্রতিফলন দেখা যায় সর্বোচ্চ ব্যয়ের বিশ্বকাপে।

আগের যে কোন আসরের চেয়ে এবারের প্রাইজমানি দেওয়া হবে অনেক বেশি পরিমাণেই।

ফিফার তথ্যমতে, এবারের বিশ্বকাপে অংশ নেওয়া ৩২ দলের জন্যই থাকছে প্রাইজমানি। যেখানে বিশ্বকাপে চ্যাম্পিয়ন দল পাবে ৪ কোটি ২০ লাখ ডলার, বাংলাদেশি মুদ্রায় যা প্রায় ৪৩৩ কোটি ৬০ লাখ টাকা।

২০১৮ সালের রাশিয়া বিশ্বকাপের চেয়ে এবারের প্রাইজমানি ৪০ মিলিয়ন ডলার বেশি।

এবারের বিশ্বকাপে রানার্স-আপ দল পাবে ৩ কোটি ২০ লাখ ডলার। তৃতীয় স্থান অর্জন করা দল পাবে ২ কোটি ৬০ লাখ ডলার। চতুর্থস্থানের দল পাবে ২ কোটি ২২ লাখ ডলার।

এবারের বিশ্বকাপের সর্বমোট প্রাইজমানি ধরা হয়েছে ৪৪০ মিলিয়ন ডলার। এছাড়া আসরের সেরা ফুটবলার, গোলরক্ষক এবং সর্বোচ্চ গোলদাতার জন্যও থাকবে আলাদা পুরস্কার।

২০২২ কাতার বিশ্বকাপের প্রাইজমানির পরিমাণ-

চ্যাম্পিয়ন : ৪ কোটি ২০ লাখ ডলার

রানার্স-আপ : ৩ কোটি ২০ লাখ ডলার

তৃতীয়স্থান অর্জনকারী দল : ২ কোটি ৬০ লাখ ডলার

চতুর্থস্থান অর্জনকারী দল : ২ কোটি ২২ লাখ ডলার

কোয়ার্টারফাইনাল খেলা দল : ১ কোটি ৬০ লাখ ডলার।

নক আউট পর্বে যাওয়া দল : ১ কোটি ২০ লাখ ডলার।

গ্রুপ পর্বে অংশগ্রহণকারী দল : ৮০ লাখ ডলার।

এছাড়া বিশ্বকাপে অংশ নেওয়া ৩২টি দলই অন্তত ২৫ লাখ ডলার করে পাবে।

উল্লেখ্য, কাতার বিশ্বকাপে ৬৩টি দেশের মোট ৪১৬টি ক্লাবের খেলোয়াড়েরা বিশ্বকাপে অংশ নিচ্ছেন। মোট খেলোয়াড়সংখ্যা ৮৩০।

এসব ক্লাবের খেলোয়াড়েরা যত দিন বিশ্বকাপে থাকবেন, তত দিন ধরেই টাকা পাবে ক্লাবগুলো। প্রতিটি ক্লাবকে তাদের প্রত্যেক খেলোয়াড়ের জন্য প্রতিদিন ১০ হাজার ডলার দেওয়া হবে।

 

এই ওয়েবসাইটের সকল লেখার দায়ভার লেখকের নিজের, স্বাধীন নিউজ কতৃপক্ষ প্রকাশিত লেখার দায়ভার বহন করে না।
এই বিভাগের আরও খবর
- Advertisment -

সর্বাধিক পঠিত

- Advertisment -