1. hridoy@pipilikabd.com : হৃদয় কৃষ্ণ দাস : Hridoy Krisna Das
  2. support@pipilikabd.com : pipilikabd :
  3. md.khairuzzamantaifur@gmail.com : তাইফুর রহমান : Taifur Bhuiyan
  4. admin@swadhinnews.com : নিউজ রুম :
শুক্রবার, ২৯ মে ২০২০, ১০:৫৩ অপরাহ্ন

কুষ্টিয়া শহরে অসহায় মানুষের পাশে বিথী আক্তার

হৃদয় কৃষ্ণ দাস
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ৪ মে, ২০২০
  • ১৬২ বার পঠিত
কুষ্টিয়া শহরে অসহায় মানুষের পাশে বিথী আক্তার

কুষ্টিয়ার শহরের শতাধিক মানুষকে রান্না করা খাদ্য বিতরণ করছেন এক কলেজ ছাত্রী। কুষ্টিয়া সরকারী মহিলা কলেজের বাংলা বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রী বিথী আক্তার সেবাশ্রমের ভিত্তিতে নিজের ছোট ভাইকে সাথে করে নিয়ে কাজটি করে যাচ্ছেন। করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে নিজের জীবনের ভয় না পেয়ে আনাহারী মানুষের মুখে খাবার তুলে দিয়ে অনেক প্রশংসাও কুড়িয়েছেন মেয়েটি। আলোচিত কলেজ ছাত্রীর বাড়ি কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলার কালুয়াতে। আলোকিত মানুষ হিসেবে পরিচিতি লাভ করা ওই কলেজ ছাত্রীর পিতা রুহুল আমিন পেশায় একজন কৃষক। কৃষক কন্যা হয়ে যখন তার নিজের পড়ালেখার খরচ জোগাড় করতে প্রাইভেট টিউশনি করতে হয়।

তখন সেই মেয়েটি অন্যদের মুখে আহার তুলে দিতে দিন রাত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন। কুষ্টিয়ার শহরের একটি ছাত্রবাসে থাকেন বিথী। প্রথমে নিজের ছাত্রবাসে খাবার রান্না করে তা গরীব মানুষদের দিতেন। পরে ওই ছাত্রবাসের সামনে অনাহারী মানুষের ভিড় বাড়তে থাকলে তিনি নতুন উদ্যোগ নেন। বন্ধুদের সাথে এই বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করলে সহযোগিতা চলে আসে বিভিন্ন জায়গা থেকে। তার পাশে এসে দাড়ান বন্ধু মেহেদী হাসান। একে একে যোগ হয় ইন্টার্নী করা মেডিকেল এ্যাসিসটেন্ট শাহাবুদ্দিন শামীম, সাকিল ও জুয়েল রানা। এগিয়ে আসেন বাংলাদেশ ছাত্রমৈত্রীর জেলা শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক সিরাজুল ইসলাম খান শিশির।

স্বেচ্ছাসেবক হিসেবে সাংবাদিক প্রীতম মজুমদারও যোগ দেন। অগ্রণী ব্যাংক কর্মকর্তা ইব্রাহিম হোসেন সহ আর্থিক সহযোগিতায় এগিয়ে আসেন অনেকে। সহযোদ্ধাদের নিয়ে চলছে বিথীর করোনা জয়ের যুদ্ধ। যুদ্ধে দাখিল হয়েছেন ক্লাস নাইনে পড়া তার আপন ছোট ভাই সোহরাব। বিথীর বন্ধু মেহেদী হাসান জানান , বিথীর উদ্যোগে আমরা নিজেদের যুক্ত করে গরীব অসহায় মানুষের জন্য কাজ করে যাচ্ছি। এব্যাপারে বিথীর সাথে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, আমার সাধ্য অনেক কম। শহরের ধর্ণাঢ্য ব্যক্তিরা চাল, ডাল, তেল কিনে দেন। আর আমি রান্না করে তা সরবারাহ করছি। শহরের একটি রেষ্টুরেন্টের মালিক তার রান্না ঘর আমাদের ব্যবহার করতে দিয়েছেন। আর আমরা রান্না করে সরবারাহ করছি। লকডাউনের কারণে গত ৩৭ দিন মানুষের কোন কাজ নেই। যারা দৈনিক হাজিরায় কাজ করেন তারা না খেয়ে থাকছেন।

রোজার মধ্যে এক বেলা খাবার দিতে পারায় অনেক খুশী বিথী। বিথী আরো বলেন, আমি যে ছাত্রীবাসে থাকি সেই এলাকায় অনেক ছাত্রীবাস রয়েছে। ছাত্র এবং ছাত্রী বাসে যে সকল মহিলা রান্নার কাজ করেন,স্কুল কলেজ বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ থাকার কারণে তাদের কোন কাজ নেই। মেসে রান্না করা গৃহপরিচারিকাদের মুখে খাবার তুলে দিতেই আমরা প্রথমে এই উদ্যোগ গ্রহণ করি। আস্তে আস্তে সহযোগিতা বাড়ছে আমরাও চেষ্টা করছি বেশী মানুষকে খাদ্য সরবারাহ করতে। জাগো

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..

সাহরি ও ইফতারের সময় সূচি

সাহরি ও ইফতারের সময়সূচী
( শুক্রবার,২৯ মে ২০২০ )
 বিভাগ
 সাহরি শেষ
 ইফতার
 ঢাকা
 ০৬:০০ মিঃ
 ০৬:০০ মিঃ
 চট্টগ্রাম
 ০৫:৫৮ মিঃ
 ০৫:৫২ মিঃ
 সিলেট
 ০৫:৫১ মিঃ
 ০৫:৫৬ মিঃ
 রাজশাহী
 ০৬:০৫ মিঃ
 ০৬:০৮ মিঃ
 বরিশাল
 ০৬:০২ মিঃ
 ০৫:৫৮ মিঃ
 খুলনা
 ০৬:০৬ মিঃ
 ০৬:০২ মিঃ
 রংপুর
 ০৫:৫৯ মিঃ
 ০৬:০৬ মিঃ
 ময়মনসিংহ
 ০৫:৫৭ মিঃ
 ০৬:০১ মিঃ

ফেসবুকে আমরা

© All rights reserved © 2020 SwadhinNews.com
Design & Developed By : PIPILIKA BD
error: Content is protected !!