দারাজে বসেছে গরুর হাট

0
12

নিজস্ব প্রতিবেদক

বৈশ্বিক করোনা মহামারিতে ক্রেতাদের স্বাস্থ্য সুরক্ষার কথা চিন্তা করে নিজস্ব অনলাইনে কোরবানির হাট শুরু করেছে দারাজ।

সোমবার গণমাধ্যমে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বৈশ্বিক করোনা মহামারির সংক্রমণের ফলে বাজারে গিয়ে কোরবানির পশু কেনা স্বাস্থ্য সুরক্ষার জন্য হুমকি হয়ে দাঁড়িয়েছে। এ সঙ্কট সমাধানে, দেশের বৃহত্তম অনলাইন মার্কেটপ্লেস দারাজ বাংলাদেশ (https://www.daraz.com.bd) শাইনেক্স ফ্লোর ক্লিনারের সহযোগিতায় পবিত্র ঈদুল আযহাকে সামনে রেখে নিজস্ব অনলাইন ‘কোরবানীর হাট’ শুরু করেছে। এর ফলে ক্রেতারা স্বাস্থ্য সুরক্ষার বিষয়ে দুশ্চিন্তা না করে ঘরে বসেই কোরবানির পশু কিনতে পারবেন।

অনলাইন ‘কোরবানীর হাট’- এ সকল পশুর ওজন, বয়স, জাত ও গায়ের রঙ উল্লেখ করে ছবি, ভিডিও এবং বিস্তারিত তথ্য দেয়া থাকবে। ক্রেতারা দারাজ অ্যাপের মাধ্যমে সবকিছু দেখে তাদের পছন্দসই কোরবানির পশু কিনতে পারবেন। যারা গরুর হাটে যাওয়ার মত পর্যাপ্ত সময় পাচ্ছেন না কিংবা যারা করোনার সংক্রমণের ভয়ে মানুষের সমাগম এড়াতে চাচ্ছেন, তাদেরকে কোরবানির পশু কিনতে সহায়তা করতেই এ উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে আরো জানানো হয়, দারাজের অনলাইন কোরবানির হাটে ১ হাজারটি পশু রয়েছে। এর মধ্যে গরু ৭০০ এবং ছাগল ৩০০টি ছাগল। পশুর মূল্য ৫৫ হাজার টাকা থেকে ৮ লাখ টাকার মধ্যে।

এছাড়া ক্রেতাদের জন্য গরু ক্রয়ে রয়েছে ৬ হাজার ৫০০ টাকা এবং ছাগল ক্রয়ে ২ হাজার ৫০০ টাকা পর্যন্ত ছাড় রয়েছে। এর সাথে ফি ডেলিভারি ব্যবস্থা এবং ফি হাসিল সুবিধাও রয়েছে। আর সঠিক স্বাস্থ্যবিধি ও স্যানিটাইজেশন নিশ্চিত করতে ক্রেতারা প্রতিটি ক্রয়ের সাথে শাইনেক্স ফ্লোর ক্লিনার ফ্রি পাবেন এবং প্রি-পেমেন্ট অপশনের মত অসাধারণ সুবিধাও থাকছে ক্রেতাদের জন্য।

‘চলমান এই অনলাইন হাটে সহায়তা করছে শাইনেক্স ফ্লোর ক্লিনার। হাটটি চলবে আগামী ১৬ জুলাই পর্যন্ত।’