পরশুরামে মুহুরী নদীর পানিতে ডুবে এক শিশুর অকাল মৃত্যু

0
33

পরশুরামে নানার বাড়ীতে বেড়াতে এসে রবিবার (২৩ মে) দুপুরে মুহুরী নদীর পানিতে ডুবে আইরিন সুলতানা প্রিয়া (১১) নামের এক শিশু মারা গেছে। সে স্থানীয় প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেনীর শিক্ষার্থী। নিহত প্রিয়া ফেনীর সদর উপজেলার কাজীরবাগ ইউনিয়নের আবদুল কাদেরের মেয়ে। রবিবার উপজেলার চিথলিয়া ইউনিয়নের পশ্চিম অলকা গ্রামে মর্মান্তিক এঘটনা ঘটেছে।
আইরিন সুলতানা প্রিয়া ছোটবোন আপরিন সুলতানা প্রমি (১০) সহ শনিবার সন্ধায় পশ্চিম অলকার নানা বাড়ীতে বেড়াতে আসে। রবিবার (২৩ মে) দুপুরের ছোটবোন আর মামাতোবোন সুরাইয়া সুলতানা রিপু (৯) সহ বাড়ীর পাশে মুহুরী নদীর পাড়ে খেলতে যায়, এসময় হঠাৎ পা পিছলে দুজন নদীতে পড়ে গেলে আইরিন সুলতানা প্রিয়া ছোটবোন ও মামাতো বোনকে নদী থেকে টেনে তুলার চেষ্টা করে। এসময় নিজেই নদীতে পরে যায়। পরে প্রত্যাক্ষদর্শী এক যুবক মো ইয়াছিন দুইজনকে নদী থেকে উদ্বার করতে সক্ষম হলেও আইরিন সুলতানা প্রিয়াকে খুঁজে পায়নি।
স্থানীয় লোকজন দুপুর থেকে বিকেল পর্যন্ত আইরিন সুলতানা প্রিয়াকে উদ্বারের চেষ্টা করে ব্যর্থ হয় পরে স্থানীয় ফায়ার সার্ভিস এর কর্মীদের খবর দেয়। ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা ঘটনাস্থলে গিয়ে নদী থেকে সন্ধায় আইরিন সুলতানা প্রিয়ার মরদেহ উদ্ধার করে।
পরশুরাম থানার ওসি মুঃ খালেদ হোসেন মুহুরী নদীর পানিতে ডুবে এক শিশু মারা যাবার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।
চিথলিয়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান জসিম উদ্দিন জানান রবিবার দুপুরে খেলতে গিয়ে মুহুরী নদীর পানিতে ডুবে আইরিন সুলতানা প্রিয়া নামের এক শিশু মারা গেছে।
নিহত প্রিয়ার বাবা আবদুল কাদের জানান আইরিন সুলতানা প্রিয়া শনিবার সন্ধায় তার ছোট বোনকে নিয়ে নানার বাড়ীতে বেড়াতে গিয়ে নদীর পানিতে ডুবে মারা যায়।