বিয়ের প্রতিশ্রুতিতে প্রতারণার শিকার কাশিনাথপুর পাইলট স্কুলের শিক্ষিকা

আলমগীর কবির পল্লব  বেড়া পাবনা প্রতিনিধিঃ
বিয়ের প্রতিশ্রুতিতে প্রতারণার শিকার হয়েছেন পাবনা কাশীনাথপুর সেন্ট্রাল পাইলট স্কুলের পদার্থ  বিজ্ঞানের সহকারি শিক্ষিকা শবনম জাহান।
ভুক্তভোগী শিক্ষিকা শবনম জাহানের বাবা আব্দুল মান্নান তিনি একই স্কুলের প্রধান শিক্ষক।
ঢাকা পল্লবী এলাকার স্থায়ী বাসিন্দা আলাউদ্দিন। বয়স আনুমানিক ৪০/৪৫ হব। পেশায় তিনি একজন সরকারী কর্মকর্তা। শিক্ষিকা শবনম জাহানের সাথে পারিবারিকভাবে বিয়ের কথা চলে প্রায় বছরখানেক আগে থেকে। মাঝখানে আলাউদ্দিনের পরিবারের লোকজনের এ বিয়েতে সম্মতি না থাকায় স্থগিত পড়ে।
কিন্তু আলাউদ্দিন এবং শবনমের যোগাযোগটা ছিল খুবই স্বাভাবিক। বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে   বিভিন্ন  চাইনিজ রেস্টুরেন্টে দুজনের সময় কাটতো বেশ ভালো। তারই ধারাবাহিকতায় গতকাল শনিবার ১৭ই ডিসেম্বর দুপুরের  দিকে আলাউদ্দিন শবনম জাহানের গ্রামের বাড়ি পাবনা কাশিনাথপুর এল কে রিয়েল স্টেটের পদ্মা ভবনের ৩য় তলায় আসেন। এদিকে জরুরি কাজে সকাল বেলাতেই শবনমের বাবা মা বাড়ী থেকে বের হয়ে যান। ফাকা বাড়ীতে দুজনের সময় কাটবে ভালো সেই সুবাদে আসা হয় আলাউদ্দিনের। বিষয়টি সন্দেহজনক হওয়ায় আশপাশের বাড়ীর লোকজন তাদেরকে একই ঘরের ভিতর থেকে আটক করে আমিনপুর থানা পুলিশকে খবর দেয়। পরে খবর পেয়ে ফোর্সসহ  ঘটনাস্থলে আসেন আমিনপুর থানার এস আই মাহমুদ। পারিবারিক ভাবে বিষয়টি সমাধানের জন্য এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গরা দায়িত্ব নেন। সমাধন না হলে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে জানিয়েছেন এস আই মাহমুদ।
আটক আলাউদ্দিন সাংবাদিকদের কাছে অভিযোগ করেন, আমি বাসা খুজতে এই এলাকায় আসি। এরা পরিকল্পিতভাবে আমাকে ফাঁসানোর  চেষ্টা করছেন। তার অভিযোগের ভিত্তিতে ভুক্তভোগী শবনম জাহানের সাথে কথা বললে তিনি জানান, বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে সে আমার সাথে বিভিন্নভাবে প্রতারণা করছে আমি এর উপযুক্ত বিচার চাই।
এই ওয়েবসাইটের সকল লেখার দায়ভার লেখকের নিজের, স্বাধীন নিউজ কতৃপক্ষ প্রকাশিত লেখার দায়ভার বহন করে না।
এই বিভাগের আরও খবর
- Advertisment -

সর্বাধিক পঠিত

- Advertisment -