হজযাত্রায় পূর্ণ কোটা পেল বাংলাদেশ

 

 

 

 

স্বাধীন নিউজ ডেস্ক!

হজযাত্রায় পূর্বনির্ধারিত পূর্ণ কোটা পেয়েছে বাংলাদেশ। সোমবার (৯ জানুয়ারি) এ বিষয়ে সৌদি আরবের সঙ্গে বাংলাদেশের হজ চুক্তি সম্পন্ন হয়েছে।

চুক্তি অনুযায়ী, ২০২৩ সালে বাংলাদেশ থেকে ১ লাখ ২৭ হাজার ১৯৮ জন পবিত্র হজ পালন করতে পারবেন।

এর আগে মহামারি করোনার কারণে ২০২০-২১ সালে নিষেধাজ্ঞা জারি করে সীমিত পরিসরে হজ আয়োজন করে সৌদি কর্তৃপক্ষ।

তবে সেই নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে গত বছর আল্লাহু আকবার রবে প্রকম্পিত হয় পবিত্র মক্কা নগরী। যদিও সৌদি সরকারের পক্ষ থেকে বেঁধে দেওয়া নিয়মে স্বাভাবিকের চেয়ে অর্ধেক সংখ্যক সুযোগ পান পবিত্র হজ পালনের। আজন্ম লালিত হজের আশা অধরা থেকে যায় অর্ধেকের বেশি নিবন্ধিতের।

এবার পূর্ণ কোটাই পেয়েছে বাংলাদেশ। আগামী মে মাসের শেষ সপ্তাহে উড়বে হজের প্রথম ফ্লাইট।

সুষ্ঠু ব্যবস্থাপনায় হাজিদের বিড়ম্বনা লাঘবে সৌদি সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে হজ অ্যাজেন্সিজ অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (হাব)।

জানা গেছে, জিলহজ মাসের ৭-১২ তারিখ মক্কা থেকে মিনা, আরাফাত ও মুজদালিফায় অবস্থান করতে হয় মুসল্লিদের।

তবে সেখানে যাতায়াত, তাঁবু ও খাবারসহ নানা বিষয়ে বিড়ম্বনায় পড়তে হয় অবস্থানকারীদের। এ কষ্ট লাঘবে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে সৌদি সরকারের প্রতি আহ্বান জানায় হাব।

চুক্তি অনুযায়ী এবার প্রায় ৩০ লাখ লোক হজ পালন করবেন। এর মধ্যে বহির্বিশ্ব থেকে প্রায় ২০ লাখ মুসলমান হজে অংশ নেবেন। বাকিরা স্থানীয় পর্যায়ে অংশ নেবেন।

জিলহজ মাসের চাঁদ দেখা সাপেক্ষে এবার পবিত্র হজ অনুষ্ঠিত হবে ২৮ জুন।

 

এই ওয়েবসাইটের সকল লেখার দায়ভার লেখকের নিজের, স্বাধীন নিউজ কতৃপক্ষ প্রকাশিত লেখার দায়ভার বহন করে না।
এই বিভাগের আরও খবর
- Advertisment -

সর্বাধিক পঠিত

- Advertisment -