হৃদয়ে সিআরবি রাশেদুল আলম

0
25

ইট পাথরের খাঁচায় বন্দী মানুষ দু-খন্ড সময় কাটাবে কিংবা প্রাণভরে নিবে এমন উন্মুক্ত পরিবেশ খুব একটা নেই বন্দরনগরী চট্টগ্রামে। ব্রিটিশ আমলের চুন সুরকির একটি ভবন কে ঘিরে শতবর্ষী গাছ গাছালি পিছ ঢালা আঁকাবাঁকা রাস্তা ছোট বড় পাহাড় টিলা আর ছোট বড় বাংলোগুলো ঘিরে মন জুড়ানো এক প্রাকৃতিক পরিবেশ রয়েছে এখানে,ইতিমধ্যে অনেকে মনে মনে ভাবছেন নিশ্চয় চট্টগ্রামের সিআরবি এলাকার কথা বলতেছে হুম আমি সিআরবির কথায় বলতেছি।চট্টগ্রাম নগরবাসী স্থানটিকে চট্টগ্রামের ফুসফুস বলে থাকেন।

এই পথ দিয়ে গাড়ীতে করে যাওয়া আসা হয়েছে অনেক বার কিন্তু এইপথ দিয়ে হাঁটার সৌভাগ্য হয়েছে মাত্র একবার কারণ চট্টগ্রামের ছেলে হয়েও চট্টগ্রামের সব জায়গা চেনা আমার জন্য ডিফিকাল্ট এতবড় একটা শহর এদিক সেদিক চতুর্দিকে রাস্তা কোন দিক দিয়ে যাবো বোঝতে কষ্ট হয়, তাই ভালো করে চেনা জায়গাগুলো ছাড়া অচেনা জায়গাগুলোতে দরকার ছাড়া বের হয়নি কখনো। বাংলাদেশ ক্রিকেটের দেশ সেরা ওপেনিং ব্যাটসম্যান তামিম ইকবালের বাড়ীর পাশে কাজীরদেউড়ী এলাকায় একবার পরীক্ষা দিতে গিয়ে সেখান থেকে দুই বন্ধুর সাথে হাঁটতে হাঁটতে গিয়েছিলাম। চারপাশে সবুজের সমারোহ গাছগাছালি ছোট ছোট পাহাড় ছবির থেকে বাস্তবে অনেক সুন্দর দেখলেই প্রাণ জুড়িয়ে যায়।

কয়েকদিন ধরে সোশ্যালমিডিয়ায় তোলপাড় শুরু হয়ছে চট্টগ্রামের ফুসফুস সিআরবিতে নাকি গাছ কেটে হাসপাতাল নির্মাণ করা হবে। ইতিমধ্যে জলবায়ু পরিবর্তনের এক বিরুপ প্রভাব দেশে পড়েছে অনাবৃষ্টি,অতিবৃষ্টি, প্রচন্ড গরম উক্ত বিরুপ অবস্থাতে দাঁড়িয়ে চট্টগ্রাম নগরবাসীর ফুসফুস ধ্বংস করে হাসপাতাল নির্মাণ করা কোন যৌক্তিক সিদ্ধান্ত হতে পারেনা। চট্টগ্রামের গুরুত্বপূর্ণ উপজেলা সীতাকুন্ডে হাসপাতাল করার উপযোগী জায়গার অভাব নেই সুতারাং সিআরবিতে হাসপাতাল নির্মাণ না করে অন্যজায়গায় করুন।

লেখকঃরাশেদুল আলম
শিক্ষার্থী
সীতাকুণ্ড বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ